শনিবার, ২৪শে ফেব্রুয়ারি ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

শনিবার, ২৪শে ফেব্রুয়ারি ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ শনিবার, ২৪শে ফেব্রুয়ারি ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ১১ই ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ, ১৩ই শাবান ১৪৪৫ হিজরি

আমি করোনায় আক্রান্ত, দোয়া ও ক্ষমা চাই- বাগেরহাটের শাহিনুর

প্রভাতী ডেস্ক: ‘আমি করোনায় আক্রান্ত, দোয়া ও ক্ষমা চাই। ’ ফেসবুকে এমনই স্ট্যাটাস দিয়েছেন বাগেরহাটের মোংলা পৌর শহরের খানজাহান আলী রোডের বাসিন্দা আব্দুল হাকিম হাওলাদারের ভাড়াটিয়া ও এনজিও কর্মী শাহিনুর আক্তার (৪০)। তিনি এক ছেলে নিয়ে ওই বাড়িতে ভাড়া থাকেন। মঙ্গলবার(৭ এপ্রিল) রাত ৮টার দিকে তিনি তার নিজ ফেসবুকে এ স্ট্যাটাস দেন।

গত এক সপ্তাহ ধরে শাহিনুরের সর্দি, কাশি, জ্বর ও শ্বাস কষ্ট হচ্ছে। শাহিনুর তার নিজ ফেসবুকে দাবি করেন, করোনাভাইরাসের ৯০ ভাগ উপসর্গ তার শরীরে রয়েছে। এদিকে স্থানীয় প্রশাসন শাহিনুরের বাড়িতে লাল পতাকা টানিয়ে তার হোম কোয়ারেন্টাইন নিশ্চিত করেছে।

শাহিনুর দীর্ঘদিন ধরে একটি এনজিওতে কাজ করতেন। এদিকে এ ঘটনায় এলাকা জুড়ে জনসাধারণের মাঝে চরম ভীতি ও করোনা আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়েছে। শাহিনুরের বাড়িওয়ালা আব্দুল হাকিম হাওলাদার বলেন, শাহিনুরের স্বামী নেই, ছেলে নিয়ে তার বাড়িতে প্রায় সাড়ে তিন বছর ধরে বসবাস করছেন। ভাড়াটিয়া শাহিনুর গত কয়েকদিন ধরে অসুস্থ বলে তিনি শুনেছেন। অসুস্থ হওয়ার আগে শাহিনুর খুলনায় ছিলেন। সেখানেই অসুস্থ হয়ে পড়ার পর মোংলায় আসেন।

মোংলা উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. রাহাত মান্নান বলেন, শাহিনুরের শরীরের নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষার জন্য পাঠাতে উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. জীবিতেষ  বিশ্বাসকে  লিখিতভাবে নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। শাহিনুরের বাড়িতে লাল পতাকা টানিয়ে তার হোম কোয়ারেন্টাইন নিশ্চিত করা হয়েছে।

উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. জীবিতেষ বিশ্বাস  বলেন, শাহিনুর এক সপ্তাহ ধরে সর্দি, কাশি, জ্বর ও শ্বাস কষ্টে ভুগছেন। অসুস্থতার খবর শুনে তাকে ওষুধ দেওয়া হয়েছে। বুধবার দুপুরে করোনাভাইরাসের পরীক্ষার জন্য তাকে এ্যাম্বুলেন্সে করে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

Facebook
Twitter
LinkedIn
Telegram
WhatsApp
Email
Print